অপরাধী সংশোধন ও পূর্নবাসন সংস্থা সিলেটের কমিটি গঠন

অপরাধী সংশোধন ও পূর্নবাসন সংস্থা সিলেটের কার্যকরী কমিটি গঠিত হয়েছে। সিলেটের জেলা প্রশাসক এম কাজী এমদাদুল ইসলামকে এ কমিটির সভাপতি করা হয়েছে। সোমবার বিকেলে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত সাধারণ সভায় ২১ সদস্যবিশিষ্ট ৩ বছর মেয়াদী এ কমিটি গঠন করা হয়। উপ-পরিচালক (উপসচিব) স্থানীয় সরকার বিভাগ মীর মাহবুবুর রহমানের সভাপতিত্বে এ সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

কমিটির অন্য কর্মকর্তারা হচ্ছেন- সহ সভাপতি সিলেট জেলা সমাজসেবা কার্যালয়ের উপপরিচালক নিবাস রঞ্জন দাস, সিলেট কেন্দ্রীয় কারাগারের সিনিয়র জেল সুপার মুহাম্মদ মঞ্জুর হোসেন, সিলেটের পি.পি এডভোকেট নিজাম উদ্দিন, সমাজকর্মী মো. জহির উদ্দিন আমীন, সমাজকর্মী নাজনীন হোসেন, সম্পাদক প্রবেশন অফিসার মো. তমির হোসেন চৌধুরী, সহ-সম্পাদক মো. আজহার উদ্দিন (জাহাঙ্গীর), আইন সহায়তা সম্পাদক অ্যাডভোকেট এমাদউল্লাহ শহিদুল ইসলাম শাহীন, কোষাধ্যক্ষ মো. মোস্তফা কামাল।
নির্বাহী সদস্য হিসেবে আছেন আব্দুল বাতিন ফয়সল, মো. মনির উদ্দিন চৌধুরী, ডা. মোস্তফা শাহজামান চৌধুরী বাহার, শোয়েব আহমদ, আছমা কামরান, শাহানারা বেগম, সাজ্জাদুর রহমান সুজ্জাদ, সালমা বাছিত, মো. আবুল কালাম, মিসেস হেলেন আহমদ, মো. আব্দুর রহমান জামিল।

সভায় বিগত বার্ষিক সাধারণ সভার কার্যবিবরণী, আয় ব্যয়ের হিসাব, প্রস্তাবিত বাজেট, নিরীক্ষা প্রতিবেদন, সাধারণ সম্পাদকের রিপোর্ট পেশ ও অনুমোদন করা হয়।

সভায় আলোচনায় অংশ নেন অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট এ এইচ এম মাহফুজুর রহমান, সাবেক সাংসদ সৈয়দা জেবুন্নেছা হক, অ্যাডভোকেট এমাদুল্লাহ শহীদুল ইসলাম শাহীন, সেলিম আউয়াল, সৈয়দ মোতাহির আলী, মাওলানা নাসির উদ্দিন, অ্যাডভোকেট আলী মোস্তফা মিশকাতুন নূর, সার্জেন্ট শফিউল আলম প্রমূখ।

সভার শুরুতে অপরাধী সংশোধন সংস্থা সিলেটের কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য সিরাজুল ইসলাম ফারুক ও সিরাজুল ইসলাম ও জীবন সদস্য আব্দুল কাইয়ুম এর মৃত্যুতে শোক প্রস্তাব গৃহিত হয়।- প্রেসরিলিজ