সিলেটে কর্মচারিদের কর্মবিরতি অব্যাহত

জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়, এবং সহকারী কমিশনার (ভূমি) এর কার্যালয়ে কর্মরত ১৬-১১ গ্রেডের কর্মচারিদের পদ-পদবি পরিবর্তন ও বেতন গ্রেড উন্নীতকরণের দাবীতে সারা দেশের ন্যায় সিলেটে বাংলাদেশ কালেক্টরেট সহকারী সমিতি (বাকাসস) এর উদ্যোগে পূর্ন দিবস কর্মবিরতি পালিত হয়েছে।

১৫ নভেম্বর থেকে বিরতিহীন কর্ম বিরতি শুরু হওয়া কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে বুধবার সিলেটে কর্মবিরতির ৯ম দিন অতিবাহিত হয়েছে। কেন্দ্রীয় কর্মসূচীর অংশ হিসাবে জেলা ও উপজেলা কালেক্টরেট সহকারীরা তাদের স্ব স্ব অফিসের সামনে প্রতিদিন সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত পূর্ণ দিবস কর্মবিরতি পালন করেন।

বাংলাদেশ কালেক্টরেট সহকারী সমিতি (বাকাসস) সিলেট জেলা শাখার উদ্যোগে সিলেট জেলা প্রশাসকের কার্যালায়ের সম্মুখে কর্মবিরতি পালনকালে তারা বলেন, বৃটিশ আমলের পদবী নিয়ে আমাদের চাকুরি করতে হচ্ছে। বিভিন্ন সরকারি অফিসের কর্মচারীদের পদ-পদবীর নাম পরিবর্তন হলেও আমাদের ১০-১১টি পদ এখনও বৃটিশ আমলের কেরানী’র নাম নিয়ে কাজ করতে হচ্ছে। আমাদের দেশ পরিবর্তন হয়েছে ডিজিটাল দেশে রুপান্তর হয়েছে। কিন্ত এখন আমরা এসব পদের নামের পরিবর্তন নাই আমরা অবিলম্বে এসব পদের নামের পরিবর্তনের পাশাপাশি আমাদের বেতন গ্রেডেরও উন্নীতকরণ চাই।

তারা আরো বলেন, জেলা প্রশাসক, উপজেলা প্রশাসন ও সহকারী কমিশনার(ভূমি) এর কার্যালয়ে কর্মরত ১৬-১১ গ্রেডের কর্মচারিদের পদ-পদবি পরিবর্তন ও বেতন গ্রেড উন্নীতকরণে ২০০১ সাল থেকে বাংলাদেশ কালেক্টরেট সহকারী সমিতি দাবি জানিয়ে আসছে। তাদের দাবি যৌক্তিক বলে উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষ একমত হওয়ার পরও দীর্ঘদিনেও দাবি বাস্তবায়িত হচ্ছে না। অথচ একই প্রশাসনের অধীন তশীলদার ও সহকারী তশীলদারের পদ-পদবি পরিবর্তনসহ বেতন গ্রেড উন্নীত করা হয়েছে। এতে কর্মচারিদের মধ্যে চরম হতাশা ও অসন্তোষ বিরাজ করছে।

কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসাবে ২৬ নভেম্বর পর্যন্ত পূর্ণ দিবস কর্মবিরত পালন করা হবে এরপরও দাবি বাস্তবায়িত না হলে ২৯ ও ৩০ নভেম্বর কর্ম বিরতি পালন করবে তারপরও দাবি আদায় না হলে ৫ ডিসেম্বর সকাল সাড়ে ১০টায় ঢাকায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন, সমাবেশ থেকে পরবর্তি কর্মসূচি গ্রহণ করা হবে।-প্রেসরিলিজ