ওসমানী হাসপাতালে পরিচালকদের সংবর্ধনা

বাংলাদেশ নার্সেস অ্যাসোসিয়েশন (বিএনএ) এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল শাখার উদ্যোগে হাসপাতালের বিদায়ী ও নতুন যোগদানকৃত পরিচালকদ্বয়কে সংবর্ধনা প্রদান করা হয়েছে। সোমবার সন্ধ্যায় নগরীর দরগাহ গেইটস্থ একটি অভিজাত হোটেলের সম্মেলন কক্ষে এই সংবর্ধনার আয়োজন করা হয়।
অনুষ্ঠানে অনলাইনের মাধ্যমে যুক্ত হয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্য প্রদান করেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও সিলেট-১ আসনের সাংসদ ড. এ কে আবদুল মোমেন।

তিনি বলেন, ‘ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল সবদিক দিয়ে এখন সামনে এগিয়ে যাচ্ছে। মহামারির শুরুর দিকে অল্প কয়েকজনের পরীক্ষা করা হতো, এখন প্রতিদিন কয়েক শতাধিক মানুষের পরীক্ষা করা হচ্ছে। অবকাঠামোগত দিক দিয়েও এ হাসপাতালে অনেক উন্নতি হয়েছে। তবে এখানে ডায়াগনস্টিক (রোগ নির্ণয়ের পরীক্ষা) নিয়ে মানুষের কিছু অভিযোগ আছে। ওসমানীতে দশ তলা নতুন ভবনের কাজ শেষ হওয়ার পথে। এখানে ডায়াগনস্টিকের উপর একটু জোর দিতে হবে। পাশাপাশি শহীদ শামসুুদ্দিন আহমদ হাসপাতালের উন্নতির দিকেও আমাদের নজর আছে। এখানে পর্যাপ্ত জনবলসহ যা যা প্রয়োজন, তা যেন থাকে সেটা বলে দেওয়া হয়েছে।’


ড. মোমেন বলেন, ‘করোনা মহামারিতে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নার্সেস অ্যাসোসিয়েশন সারা দেশের মধ্যে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছে। সারা দেশের যতোগুলো নার্সিং সংগঠন আছে, তাদের মধ্যে বাংলাদেশ নার্সেস অ্যাসোসিয়েশন ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল শাখা সবচেয়ে কল্যাণকর ভূমিকা রেখেছে। ওসমানী হাসপাতালের চিকিৎসক ও প্রশাসনের সাথে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে তারা কাজ করেছে। এজন্য আমি তাদেরকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি।’


বিএনএ ওসমানী হাসপাতাল শাখার সভাপতি শামীমা নাসরিনের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক ইসরাইল আলী সাদেকের সঞ্চালনা ও স্বাগত বক্তব্যে অনুষ্ঠানে সংবর্ধিত অতিথির বক্তব্য রাখেন এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বিদায়ী পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ডা. মো. ইউনুছুর রহমান ও হাসপাতালের নবযোগদানকৃত পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ডা. ব্রায়ান বঙ্কিম হালদার।
বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা মাসুক উদ্দিন আহমদ, সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক জাকির হোসেন, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট নাসির উদ্দিন খান, ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের উপপরিচালক ডা. হিমাংশু লাল রায়, সহকারী পরিচালক (প্রশাসন) ডা. আবুল কালাম আজাদ, কার্ডিওলজি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ও সিলেট বিএমএ এর কোভিড-১৯ সমন্বয় কমিটির সদস্যসচিব ডা. আজিজুর রহমান রোমান, আবাসিক সার্জন (জেনারেল) ডা. মো. রাশেদ আশরাফ, স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ কেন্দ্রীয় কমিটির কার্যকরী সদস্য ও ওসমানী হাসপাতাল মিড-লেভেল চিকিৎসক পরিষদের সভাপতি ডা. প্রশান্ত সরকার, বিএমএ সুনামগঞ্জ শাখার সাধারণ সম্পাদক ও মিড-লেভেল চিকিৎসক পরিষদ ওসমানী হাসপাতাল শাখার সাধারণ সম্পাদক ডা. নূরুল ইসলাম, আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. আবু নঈম, ইএমও কো-অর্ডিনেটর ডা. জলিল কায়ছার খোকন, জাতীয় মহিলা সংস্থা সিলেট জেলার চেয়ারম্যান হেলেন আহমদ, ওসমানী মেডিকেল কলেজ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ডা. সজল এস চক্রবর্তী, ওসমানী হাসপাতাল ইন্টার্ন চিকিৎসক পরিষদের সাধারণ সম্পাদক ডা. সুমন রায়, পররাষ্ট্রমন্ত্রীর এক্সপাট্রিয়েট কনসালটেন্ট কায়েছ চৌধুরী, ব্যক্তিগত কর্মকর্তা শফিউল আলম জুয়েল, ওসমানী হাসপাতালের নার্সিং সুপারিনটেনডেন্ট রেনোয়ারা আক্তার, সিলেট নার্সিং কলেজের অধ্যক্ষ ফয়সল আহমদ চৌধুরী প্রমুখ। -প্রেসরিলিজ