জকিগঞ্জ মুক্ত দিবস পালিত রাষ্ট্রীয় স্বীকৃতির দাবি

জকিগঞ্জ প্রতিনিধি :: জাতীয় পতাকা উত্তোলন, বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধার্ঘ নিবেদন, আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলের মাধ্যমে শনিবার জকিগঞ্জ মুক্ত দিবস পালিত হয়েছে। স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধাদের দাবি- দেশের প্রথম মুক্তাঞ্চল এটি। ১৯৭১ সালের ২১ নভেম্বর শত্রæ মুক্ত হয় সিলেটের সীমান্ত উপজেলা জকিগঞ্জ।
পৌর মেয়র বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. খলিল উদ্দিন জানান, দেশব্যাপী যুদ্ধ শুরু হওয়ার পূর্বে সিলেটের সীমান্ত উপজেলা জকিগঞ্জকে শত্রæ মুক্ত করার শপথ নেন স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধারা। ১৯৭১ সালের ২০ নভেম্বর রাতে যৌথ বাহিনীর এক সাঁড়াশি সশস্ত্র অভিযানের ফলে ২১ নভেম্বর ভোরে মুক্ত হয় জকিগঞ্জ। মুক্তিযুদ্ধে জকিগঞ্জ ছিল ৪নং সেক্টরের অন্তর্ভূক্ত। অধিনায়ক ছিলেন মেজর চিত্ত রঞ্জন দত্ত। সাবেক মন্ত্রী প্রয়াত দেওয়ান ফরিদ গাজী ছিলেন এই সেক্টরের বেসামরিক উপদেষ্টা।
দিবসটি উপলক্ষে উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কার্যালয়ে আলোচনা সভার আয়োজন করে জকিগঞ্জ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ। উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের প্রশাসক ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সুমী আক্তারের সভাপতিত্বে ও উপজেলা কমান্ডের সাবেক কমান্ডার, পৌর মেয়র মো. খলিল উদ্দিনের পরিচালনায় সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন সংসদের জেলা কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা সুব্রত চক্রবর্তী জুয়েল। বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলার ডেপুটি কমান্ডার আকরাম আলী ও সহকারী ডেপুটি কমান্ডার সুবেদার রফিক উদ্দিন আহমদ। বক্তব্য দেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, বীর মুক্তিযোদ্ধা মোস্তাকিম হায়দার, প্রবীণ আওয়ামী লীগ নেতা নূর উদ্দিন, বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মুতালিব, প্রবাসী ফজলুর রহমান, সার্জেন্ট (অব) বেলাল আহমদ ও সহকারি অধ্যাপক আল মামুন।
সভায় বক্তারা বাংলাদেশের প্রথম মুক্তাঞ্চল হিসেবে জকিগঞ্জকে রাষ্ট্রীয় স্বীকৃতির দাবি জানান।