ব্রিজ আছে, রাস্তা নেই!

কামরুল হাসান, হবিগঞ্জ :: হবিগঞ্জের বাহুবল উপজেলার স্নানঘাট ইউনিয়নের লালপুর নিধনপুর গ্রামে একটি খালের উপর ব্রিজ নির্মাণ হলেও তা জনগনের কোন কাজেই লাগছে না।

কারণ ব্রিজের উভয় পাশে জনসাধারণ চলাচলের রাস্তা। এলাকাবাসী মনে করেন, সেতুটি তাদের জন্য ‘মরার ওপর খাড়ার ঘা।’ আগে যেমন খালের উপরে বাঁশের সাঁকো দিয়ে পারাপার হতে হতো, এখনো তাই করতে হচ্ছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার স্নানঘাট ইউনিয়নের লালপুর নিধনপুর গ্রামের কয়েক হাজার মানুষ খালের উপর একটি ব্রিজের অভাবে বাঁশের সাঁকো দিয়ে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করছেন দীর্ঘদিন ধরে। সংশ্লিষ্টদের কাছে একটি ব্রিজের দাবীও ছিল। অবশেষে উপজেলার কার্যক্রমের আওতায় নির্মিত হয় কাঙ্খিত ব্রিজ। কিন্তু ব্রিজের গোড়ায় মাটি না থাকায় লাখ টাকার ব্রিজটি কোন কাজেই আসছে না।

স্থানীয় বাসিন্দা রজব আলী জানান, ব্রিজের গোড়ায় মাটি ভরাট করে দিলে তাদের দীর্ঘদিনের কস্ট কিছুটা হলেও লাঘব হতো। এখনো অন্য রাস্তা ঘুরে গ্রামে আসা-যাওয়া করতে হয়। এমনকি এই বিষয়টি একাধিকবার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে জানালেও কোনো লাভ হয়নি।

রূপা আক্তার নামে এক গৃহিণী বলেন, আমাদের জীবনযাত্রা মান উন্নয়নের নামে চলছে নাটক। এ ব্রিজ নির্মাণের আগে নৌকা-বাঁশের সাঁকো দিয়ে খাল পারাপার হয়েছি। এখনও ব্রিজের পাশে মাটির ব্যবস্থা না হওয়ায় একইভাবে পারাপার হচ্ছি।

ছাত্রনেতা আজিজ সিদ্দীকি জানান, স্থানীয় রাজনৈতিক ব্যক্তিবর্গসহ সাধারণ গ্রামবাসীর প্রাণের দাবি ছিল খালের ওপর ব্রিজ নির্মাণ। সেই দাবি পূরণ হলেও পারাপারের সংযোগ সড়ক না থাকায় ব্রিজটি কোনো কাজে আসছে না।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা আশিষ কর্মকার জানিয়েছেন, ফান্ড স্বল্পতার কারনে ব্রিজের গোড়ায় মাটি দেয়া সম্ভব হয়নি। পানি কমলেই স্থানীয় চেয়ারম্যানের মাধ্যমে মাটি ভরাট করে ব্রিজটি জনগণের জন্য উন্মুক্ত করে দেয়া হবে।

এক/কাহা/এক