ভারত-পাকিস্তান সীমান্তে গোলাবর্ষণ, অন্তত ১০ জন নিহত

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক :: কাশ্মীরে ভারত ও পাকিস্তানের সীমান্তের একাধিক স্থানে গোলাবর্ষণে অন্তত ১০ জন মারা গেছে বলে খবর পাওয়া যাচ্ছে। ভারতের কর্মকর্তার বরাত দিয়ে বিবিসি জানায়, গোলাবর্ষণের ফলে দেশটির নিরাপত্তা রক্ষাকারী বাহিনীর অন্তত তিনজন সদস্য এবং আরও অন্তত তিনজন বেসামরিক নাগরিক মারা গেছেন।
অন্যদিকে, পাকিস্তানের কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে যে ১৫ বছর বয়সী এক কিশোর-সহ চারজন বেসামরিক নাগরিক মারা গেছে এবং শিশুসহ অন্তত ২০ জন আহত হয়েছে।
এদিকে, ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভি জানিয়েছে, কাশ্মীর সীমান্তে পাকিস্তান সামরিক বাহিনীর ছোড়া গোলাবর্ষণে ভারতীয় চার সেনা সদস্যসহ ৭ জন নিহত হয়েছেন। শুক্রবার জম্মু-কাশ্মীরের গুরেজ থেকে উরি সেক্টরের প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখার (এলএসি) একাধিক এলাকায় পাকিস্তানের গোলাবর্ষণের ঘটনা ঘটে। উরির হাজি পীর সেক্টর এলাকায় পাকি গোলায় ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফের একজন সদস্য নিহত ও আরও একজন আহত হয়েছেন।
ভারত ও পাকিস্তান দুই পক্ষই অন্য পক্ষের বিরুদ্ধে যুদ্ধবিরতি চুক্তি ভঙ্গের অভিযোগ তুলছে। গত ৭ নভেম্বর পাকিস্তানের সৈন্যদের সাথে গোলাগুলিতে ভারতের তিনজন সেনা মারা গিয়েছিল।
ভারতের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্রের আনুষ্ঠানিক টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে হামলার দু’টি ভিডিও পোস্ট করা হয়েছে। ঐ পোস্টে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে বিনা প্ররোচনায় হামলা করার অভিযোগ তোলা হয়। পাকিস্তানের হামলার জবাবে ভারতের সেনাদের প্রতিশোধমূলক হামলার ভিডিও দেয়া হয় ঐ পোস্টের সাথে।
অন্যদিকে পাকিস্তানের সেনাবাহিনীর জনসংযোগ অধিদপ্তরের টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে করা পোস্টে ভারতের সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে লাইন অব কন্ট্রোলের রাখচিকরি ও খঞ্জর অঞ্চলের বেসামরিক নাগরিকদের ওপর হামলার অভিযোগ তোলা হয়।
জবাবে পাকিস্তানের সেনাবাহিনী সীমান্তে ভারতের সেনা ঘাঁটিতে হামলা করেছে বলে দাবি করা হয় ঐ পোস্টে।