মণিপুরীরা তাঁতশিল্পকে অনেক উন্নত করেছেন: জেলা প্রশাসক

একাত্তর ডেস্ক
তাঁত শিল্পকে মণিপুরীরা অনেক উন্নত করেছে। সিলেটের ঐতিহ্যবাহী এ শিল্পকে এগিয়ে নেয়ার জন্যে সবাইকে সহযোগিতা করতে হবে। আগামীতে মণিপুরী তাঁত শিল্পের উন্নয়নে সরকারের পক্ষ থেকে বরাদ্দ দেওয়ার ব্যবস্থা করা হবে। মঙ্গলবার সকাল ১১টার দিকে সিলেট মহানগরীর শিবগঞ্জ এলাকার মণিপুরী তাঁত প্রশিক্ষণ ও উন্নয়ন কেন্দ্র পরিদর্শনকালে সংক্ষিপ্ত সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। মণিপুরী তাঁত প্রশিক্ষণ ও উন্নয়ন কেন্দ্র পরিদর্শনে গিয়েছিলেন জেলা প্রশাসক। এসময় তার সাথে ছিলেন সিলেট সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কাজী মহুয়া মমতাজ ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) ফারিয়া সুলতানা। পরিদর্শনকালে সংক্ষিপ্ত সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে অতিথিদের ফুল দিয়ে বরণ করেন মণিপুরী যুব সমিতির সভাপতি ফ. ধীরেন সিংহ ও ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ওয়াই লারু সিংহ। আরো উপস্থিত ছিলেন, বাংলাদেশ মণিপুরী মহিলা সমিতির সভানেত্রী এস. রীনা দেবী, এল. ইন্দ্রমনি, লোংজম হীরেন সিংহ, মুতুম সুরজিৎ, প্রদীপ সিংহ, মঙাল সিংহ, চন্দ্রশেখর সিংহ বদর, জয়মোহন সিংহ, এল. নীহার সিংহ, ওইনাম সত্যজিৎ, মাইবম রাসেল প্রমুখ। অনুষ্ঠানে যুব সমিতির পক্ষ থেকে জেলা প্রশাসককে দুটি দাবি সংবলিত স্মারকলিপি প্রদান করা হয়।
উল্লেখ্য, মণিপুরী তাঁত প্রশিক্ষণ উন্নয়ন কেন্দ্রটি প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের স্পেশাল অ্যাফেয়ার্স ডিভিশনের ক্ষুদ্র নৃতাত্ত্বিক জনগোষ্ঠেীর জন্য বিশেষ এলাকার জন্য উন্নয়ন সহায়তা প্রকল্পের আওতায় দীর্ঘদিন থেকে পরিচালিত হচ্ছে।